এবার শহীদ মিনারেও অটোরিকশা স্ট্যান্ড!

এবার শহীদ মিনারেও অটোরিকশা স্ট্যান্ড!

রয়েল ভিউ ডেস্ক :
কমলগঞ্জ উপজেলার শমশেরনগর পোস্ট অফিসের সামনের প্রধান শহীদ মিনারটি সিএনজি অটোরিকশা ষ্ট্যান্ড হিসাবে গড়ে তোলা হয়েছে।
উত্তরবাজার সিএনজি-অটোরিক্সা চালক সমিতি শহীদ মিনার প্রাচীরের গেট ও দেওয়াল ভেঙ্গে সিএনজি অটোরিকশা স্ট্যান্ড স্থাপন করায় অপবিত্র হচ্ছে শহীদ মিনার স্থল।
পাশাপাশি যানবাহনের আড়ালে শহীদ মিনার চত্বরে গড়ো তোলা সিএনজি অটো স্ট্যান্ডের ভেতরে প্রস্রাবখানা হিসাবেও ব্যবহৃত হচ্ছে। ফলে অপবিত্র হচ্ছে শহীদ মিনার স্থল। ক্ষোভ দেখা দিয়েছে সচেতন মহলের মধ্যে।
শমশেরনগর ইউনিয়ন পরিষদ সূত্রে জানা যায়, শমশেরনগর বিমানবন্দর সড়ক এলাকায় ডাকঘরের সামনে প্রায় দশ বছর পূর্বে একটি শহীদ মিনার নির্মিত হয়। শহীদ মিনার নির্মিত হওয়ার পর থেকে শমশেরনগরের একাধিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও স্থানীয়রা শহীদ মিনারটিতে বিভিন্ন দিবসে ফুল দিয়ে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান। তবে শহীদ মিনারটির বেদীর কিছু অংশ ভেঙ্গে যাওয়ায় বছর খানেক আগে মৌলভীবাজার জেলা পরিষদের অর্থায়নে ২ লাখ টাকা ব্যয়ে পূর্বমুখী করে নতুন একটি শহীদ মিনার স্থাপন করা হয়।
পার্শ্ববর্তী স্থানে শমশেরনগর উত্তরবাজার সিএনজি-অটোরিক্সা চালক সমিতির স্ট্যান্ড হিসাবে ব্যবহৃত হচ্ছে। তবে করোনাকালীন সময়ে শহীদ মিনার ব্যবহার না হওয়ায় শহীদ মিনারের পূর্ব দিকের সীমানা প্রাচীর ভেঙ্গে সিএনজি অটোরিক্সা চালকরা দখলে নেন। এরপর থেকে শহীদ মিনার স্থলে ও সম্মুখে সারিবদ্ধভাবে সিএনজি-অটো রাখা হচ্ছে।
 শহীদ মিনার চত্বরে লোকজন প্রস্রাব কাজেও ব্যবহার করছেন। ফলে এ এলাকায় দুর্গন্ধ ছড়াচ্ছে ও শহীদ মিনারের পবিত্রতা বিনষ্ট হচ্ছে।
শমশেরনগর সাহিত্যাঙ্গনের সমন্বয়ক ও সুজা মেমোরিয়াল কলেজের প্রভাষক শাহজাহান মানিক ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, শহীদ মিনারের বেদীর বেশ কিছু অংশ ভেঙ্গে গেলে জেলা পরিষদ পূর্বমুখী করে একটি বড় শহীদ মিনার নির্মাণ করে দিয়েছে। এবারও প্রথম নতুন শহীদ মিনারে মহান ভাষা ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে ফুল দিয়ে শহীদদের প্রতি সম্মান জানানো হবে। তার আগেই সিএনজি অটোরিক্সা চালক সমিতি শহীদ মিনারের চত্বরে গড়ে তুলেছে তাদের স্ট্যান্ড।
এটি খুবই দু:খজনক বলে তিনি মন্তব্য করেন।
শমশেরনগর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো. জুয়েল আহমেদ বলেন, তিনি জানেন না কিভাবে সিএনজি অটো চালকরা শহীদ মিনারের চত্বরে স্ট্যান্ড গড়ে তুলেছে।
তিনি মনে করেন অবিলম্বে শহীদ মিনার চত্তর থেকে সিএনজি অটোর স্ট্যান্ড সরিয়ে নেওয়া হোক।
এব্যাপারে শমশেরনগর উত্তর বাজার সিএনজি অটোরিক্সা চালক সমিতির সভাপতি মোস্তফা মিয়া বলেন, এ এলাকাটি ব্যস্ততম। সড়কধারে সিএনজি অটোর সারি থাকলে যানজট বেড়ে যায়। তাই শহীদ মিনারের ভেতরের খালি জায়গায় সিএনজি অটো রাখছেন। কাল শনিবার ২০ ফেব্রুয়ারিও এ শহীদ মিনারের চত্বর পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করে দেওয়া হবে।
কমলগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশেকুল হক বলেন, বিষয়টি আমাকে কেউ জানায় নি। তবে খোঁজ নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।