দেশে ফিরেই ‘লাপাত্তা’ মাহি!

দেশে ফিরেই ‘লাপাত্তা’ মাহি!

বিনোদন ডেস্ক :
সরকারের প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে ফোনালাপ ফাঁস হওয়া নিয়ে আলোচনায় থাকা চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি ওমরাহ পালন শেষে দেশে ফিরেছেন বলে জানিয়েছেন তার ঘনিষ্ঠ একজন নির্মাতা। তবে তার কোনো খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে না, কারো ফোনও ধরছেন না তিনি।

বিয়ের এক মাস পরই স্বামী রাকিব সরকারকে নিয়ে ওমরাহ পালনের জন্য সৌদি আরব যান ঢাকাই সিনেমার এই নায়িকা। তিনি সেখানে থাকা অবস্থায় সম্প্রতি সরকারের একজন প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে তার কথোপকথনের একটি অডিও ভাইরাল হয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। যা নিয়ে দেশে শোরগোল পড়ে যায়। এরপর মক্কা থেকে একটি ভিডিও বার্তাও দেন মাহি। পরেই আবার ফেসবুক স্ট্যাটাসে দেশে ফিরে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করার কথা জানান এই নায়িকা।

জানা গেছে, মাহি যখন সৌদি আরব যান তখন তার কিছু সিনেমার শুটিং চলছিল। তিনি নির্মাতাদের জানিয়েছিলেন ডিসেম্বরের প্রথম সপ্তাহেই দেশে ফিরে অংশ নেবেন শুটিংয়ে। কিন্তু তিনি দেশে ফিরলেও নির্মাতারা তার সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারছেন না।

দেশে ফেরার পর মাহিকে কোথাও দেখা না গেলেও ফেসবুকে সরব দেখা গেছে তাকে। গত দুদিন ধরে একাধিক স্ট্যাটাসও দিয়েছেন তিনি। সবশেষ হাতে চুড়ি পরা এবং চুড়ির কিছু ছবি ফেসবুকে পোস্ট দিয়ে ক্যাপশনে লিখেছেন- দু’চোখের সীমানা যত বড়, জানি জুড়ে আছি আমি বেশি তারও’। আর এদিকে গত দুদিন ধরে তার ব্যক্তিগত মুঠোফোনটিও চালু। তবে সাংবাদিকদের ফোন ধরছেন তিনি। মাহির সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়েছেন নির্মাতারাও।

নির্মাতা শামীম আহমেদ রনির জানান, চলতি মাসের ১০ তারিখ তার ‘বুবুজান’ সিনেমার শুটিং করার কথা ছিল মাহির। কিন্তু তার সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়ে কাজ পিছিয়েছেন তিনি।

রনির ভাষ্য, ‘মাহির সঙ্গে আগেও কাজ করেছি। তিনি পেশাদার একজন শিল্পী। আর এবারের ছবির গল্পটা মাহিকে নিয়ে। তাকে ছাড়া শুটিং করা অসম্ভব। আমি তার মনের অবস্থা বুঝতে পারছি। কিন্তু আমাকেও তো প্রযোজকের দিকটা দেখতে হবে। দ্রুত শুটিং করতে না পারলে, অন্য শিল্পীদের শিডিউল মেলাতে পারব না। আশা করি, মাহি শিগগিরই যোগাযোগ করবেন।’

এদিকে, নাম প্রকাশ না করার শর্তে মাহির ঘনিষ্ঠ এক নির্মাতা জানান, মাহি বর্তমানে দেশেই আছেন। গত ১৩ তারিখ মাহির সঙ্গে তার ফেসবুক মেসেঞ্জারে কথা হয়। উত্তরে মাহি জানান, তিনি দেশে ফিরেছেন। কিন্তু কথা বলার জন্য নির্মাতা তাকে ফোন দিলে ফোন ধরেননি।

তার ভাষ্য, ‘এমন কখনো হয়নি। মাহি সব সময় আমার ফোন ধরেছেন। যেকোনো বিষয়ে সহযোগিতার প্রয়োজন হলে, তাও বলেছেন। কিন্তু এবার কেমন জানি সব অন্যরকম লাগছে।’

নির্মাতা শাহীন সুমনের হাত ধরেই বড়পর্দায় পথচলা শুরু করেন মাহি। এই পরিচালকের ‘ভালোবাসার রঙ’ দিয়ে চলচ্চিত্রে তার অভিষেক। শাহীনও খুঁজে পাচ্ছেন না মাহিকে!

চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির মহাসচিব শাহীন বলেন, “সে আমার ‘মাফিয়া’য় অভিনয় করছেন। তবে আমি শুটিংয়ের জন্য নয়, তাকে মানসিক সহযোগিতার জন্য ফোন দিয়েছিলাম। কিন্তু কোনোভাবেই তাকে পাচ্ছি না।’